শুক্রবার   ০৬:০৯ পূর্বাহ্ন
১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১  |  ২রা আশ্বিন, ১৪২৮  |  ১০ই সফর, ১৪৪৩ পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
লগইন
সর্বশেষ

Loading...

দক্ষিণে ভারী বর্ষণে নদীর পানি বাড়ার আশঙ্কা

দক্ষিণে ভারী বর্ষনে নদীর পানি বাড়ার আশঙ্কা

দক্ষিণে ভারী বর্ষনে নদীর পানি বাড়ার আশঙ্কা

সাগরে অবস্থান করছে লঘুচাপ। এতে দেশে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা বেড়েছে। দেশের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে রয়েছে ভারী বর্ষণের আভাস। ফলে অঞ্চলের নদ-নদীর পানি দ্রুত বাড়ার আশঙ্কা রয়েছে।

শনিবার (২৪ জুলাই) পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) বন্যা পূর্বাভাস সতর্কীকরণ কেন্দ্র তথ্য জানিয়েছে।

পাউবো জানিয়েছে, তাদের পর্যবেক্ষণাধীন বিভিন্ন নদ-নদীর ১০৯টি পয়েন্টের মধ্যে শনিবার (২৪ জুলাই) পানির সমতল বেড়েছে ৪৯টিতে। পানির সমতল হ্রাস পেয়েছে ৫৮টিতে। একটিতে তথ্য সংগ্রহ শুরু হয়নি একটির তথ্য পাওয়া যায়নি।

ছাড়া পার্বত্য অঞ্চলের নদ-নদীর পানির সমতল বাড়ার আভাস থাকলেও বন্যাপ্রবণ নদ-নদীর পানি আপাতত বাড়ছে না।

ব্রহ্মপুত্র-যমুনা নদীর পানির সমতল হ্রাস পাচ্ছে, যা আগামী সোমবার (২৬ জুলাই) পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে। গঙ্গা নদীর পানির সমতল স্থিতিশীল আছে। অপরদিকে পদ্মা নদীর পানির সমতল বাড়ছে, যা আগামী ২৬ জুলাই পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে।

ছাড়া দেশের উত্তর-পূর্বাঞ্চলের আপার মেঘনা অববাহিকার সব প্রধান নদীর পানির সমতল হ্রাস পাচ্ছে, যা আগামী সোমবার পর্যন্ত অব্যাহত থাকতে পারে।

পাউবোর বন্যা পূর্বাভাস সতর্কীকরণ কেন্দ্রের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আরিফুজ্জামান ভূঁইয়া জানান, বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদফতর ভারত আবহাওয়া অধিদফতরের গাণিতিক মডেলের তথ্য অনুযায়ী, আগামী সোমবার পর্যন্ত দেশের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলীয় পার্বত্য অববাহিকা অঞ্চলে মাঝারি থেকে ভারী বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস আছে। এর ফলে সময়ে অববাহিকার মাতামুহুরী, সাঙ্গু, কর্ণফুলী, হালদা, মুহুরী ফেনী নদীর পানি সমতল সময় বিশেষে দ্রুত বাড়তে পারে।

আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে ভারী বর্ষণের আভাস রয়েছে, যা আগামী তিন দিন থাকতে পারে। ইতোমধ্যে চট্টগ্রামে ভারী বর্ষণ শুরু হয়েছে। অবস্থা চলতে থাকলে পার্বত্য অঞ্চলে বন্যা দেখা দিতে পারে।

সম্রাট/এম. জামান