মঙ্গলবার   ০৯:০১ অপরাহ্ন
১৮ই জানুয়ারি, ২০২২  |  ৫ই মাঘ, ১৪২৮  |  ১৫ই জমাদিউস-সানি, ১৪৪৩ পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
লগইন
সর্বশেষ

Loading...

ভারতের পরই ওমিক্রন ঝুঁকিতে বাংলাদেশ!

তবে'কি ভারতের পরপরই ওমিক্রন ঝুঁকিতে বাংলাদেশ

তবে'কি ভারতের পরপরই ওমিক্রন ঝুঁকিতে বাংলাদেশ

করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন, যার উৎপত্তিস্থল দক্ষিণ আফ্রিকা। এরপর ভাইরাসটি ইউরোপ, আমেরিকা হয়ে এবার বাংলাদেশের প্রতিবেশী দেশ ভারতেও শনাক্ত হয়েছে। গত নভেম্বর সর্বপ্রথম দক্ষিণ আফ্রিকায় শনাক্ত হওয়া ভ্যারিয়েন্টটি এরই মধ্যে ২৬টি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের মতো ওমিক্রনও ঠেকানো কঠিন হয়ে পড়বে। সচেতন না হলে বাংলাদেশেও এটি ভয়াবহ রূপ ধারণ করতে পারে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনাভাইরাসের এই ভ্যারিয়েন্টটিকে ভ্যারিয়েন্ট অব কনসার্ন' বা উদ্বেগজনক হিসেবে শ্রেণিভুক্ত করে।

দেশের সবচেয়ে কাছের দেশে অতিসংক্রমণশীল ওমিক্রন শনাক্ত হওয়া রীতিমতো শঙ্কার বিষয়। কেননা এর আগে ভারত থেকে আসা ডেল্টার কারণেই গত মধ্যজুন থেকে আগস্ট মাসের শেষ পর্যন্ত এর ভয়ঙ্কর বিধ্বংসী রূপ দেখতে হয়েছে দেশকে। এই সময়ের মধ্যেই করোনা মহামারিকালে এক দিনে সর্বোচ্চ ২৬৪ জনের মৃত্যু হয়েছেএক দিনে সর্বোচ্চ ১৬ হাজার ২৩০ জন রোগী শনাক্ত হয়শনাক্তের হার ওঠে ৩২ শতাংশে।

মারাত্মক পরিবর্তিত করোনাভাইরাসের ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট দ্রুত দক্ষিণ আফ্রিকায় আক্রমণাত্মক হয়ে উঠছে। গত ডিসেম্বর দক্ষিণ আফ্রিকার ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট ফর কমিউনিক্যাবল ডিজিসেস (এনআইসিডি) জানায়, দেশটিতে বিগত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত প্রায় দ্বিগুণ বেড়ে হাজার ৫৬১ জন সংক্রমিত হয়েছে। দেশটিতে এখন সবচেয়ে আতঙ্ক সৃষ্টিকারী ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন।

বাংলাদেশে ওমিক্রন সতর্কতায় নানা পদক্ষেপ নিয়েছে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। কোভিড-১৯ বিষয়ক জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির ওমিক্রন নিয়ে বৈঠকের পর বিষয়ে ১৫ নির্দেশনা দেয় স্বাস্থ্য অধিদফতর। এরপর অধিদফতর দক্ষিণ আফ্রিকা এবং ওমিক্রন শনাক্ত দেশ থেকে প্রবাসীদের এই মুহূর্তে দেশে না ফেরার আহ্বান জানিয়েছে। সেই সঙ্গে দক্ষিণ আফ্রিকার সঙ্গে ফ্লাইট বন্ধ করার ঘোষণা দিয়েছে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

দেশে গত ২৪ মে থেকে, ভারত সীমান্তবর্তী সাত এলাকায় বেড়েছিল করোনার সংক্রমণ। তারপর বাড়ে সংক্রমণের নতুন মাত্রা। দেশের সঙ্গে ভারতের সীমান্তবর্তী জেলা আছে ৩০টি। এর মধ্যে গত মে মাসে সংক্রমণ বাড়ার প্রবণতা দেখা গেছে সাত জেলায়। এই জেলাগুলোর মধ্যে অন্যতম ছিল চাঁপাইনবাবগঞ্জ। এরপর সেখান থেকে পুরো দেশেই ছড়িয়ে পরে নতুন ধরনের সংক্রমণ।


অর্ণব/এম. জামান