শনিবার   ০১:১২ পূর্বাহ্ন
৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২১  |  ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮  |  ২৯শে রবিউস-সানি, ১৪৪৩ পরীক্ষামূলক সম্প্রচার
লগইন
সর্বশেষ

Loading...

মামলা হচ্ছে বাবুল আক্তারের বিরুদ্ধে, বাদী হবেন শ্বশুর!

মামলা হচ্ছে বাবুল আক্তারের বিরুদ্ধে, বাদী হবেন শ্বশুর!

মামলা হচ্ছে বাবুল আক্তারের বিরুদ্ধে, বাদী হবেন শ্বশুর!

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা : চট্টগ্রামে চাঞ্চল্যকর মিতু হত্যার ঘটনায় অবশেষে স্বামী সাবেক পুলিশ সুপার (এসপি) বাবুল আক্তারের বিরুদ্ধে মামলা হচ্ছে। এই মামলার বাদী হচ্ছেন তার শ্বশুর সাবেক ওসি মোশাররফ হোসেন। তিনি এখন চট্টগ্রামে অবস্থান করছেন বলে জানা গেছে। এসব তথ্য জানিয়েছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই), চট্টগ্রাম।

গতকাল মঙ্গলবার (১১ মে) মাহমুদা খানম (মিতু) হত্যার ঘটনায় সম্পৃক্ততা পাওয়ায় বাবুল আক্তারকে হেফাজতে নেয় পিবিআই। 

সংস্থাটি জানিয়েছে, বাবুল আক্তারের বিরুদ্ধে আজ বুধবার (১২ মে) চট্টগ্রাম নগরীর পাঁচলাইশ থানায় মামলাটি দায়ের করার কথা রয়েছে। এ মামলায় বাবুল আক্তারকেই মামলার প্রধান আসামি করা হবে। মামলার এজাহারে তাকে স্ত্রী হত্যার নির্দেশদাতা হিসেবে উল্লেখ করা হবে। আগের মামলার আসামিদেরকে নতুন মামলায় হত্যাকাণ্ডের সহযোগী হিসেবে উল্লেখ করা হবে। ওই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে তোলা হবে তাকে। 

বুধবার সকালে বাবুল আক্তারের শ্বশুর মোশাররফ হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘পিবিআই-এর ডাকে আমি ঢাকা থেকে চট্টগ্রামে এসেছি। আমার মেয়ের খুনে বাবুল আক্তার যে জড়িত, সেটা আগেই আমি উত্থাপন করেছিলাম। একটু অপেক্ষা করুন ঘণ্টা দুয়েকের মধ্যে সব পরিষ্কার হয়ে যাবে। 

২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে চাঞ্চল্যকর এ হত্যা মামলাটি তদন্ত করছে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। 

২০১৬ সালের ৫ জুন সকালে চট্টগ্রাম নগরীর নিজাম রোডে ছেলেকে স্কুলবাসে তুলে দিতে যাওয়ার পথে দুর্বৃত্তদের গুলি ও ছুরিকাঘাতে খুন হন মাহমুদা খানম মিতু। ওই সময় এ ঘটনা দেশজুড়ে ব্যাপক আলোচিত হয়। ঘটনার সময় মিতুর স্বামী পুলিশ সুপার বাবুল আক্তার অবস্থান করছিলেন ঢাকায়। ঘটনার পর চট্টগ্রামে ফিরে তৎকালীন পুলিশ সুপার ও মিতুর স্বামী বাবুল আক্তার পাঁচলাইশ থানায় অজ্ঞাতনামাদের আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

লাইজুল/সবুজ/এম. জামান